মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১
Logo
খুলনা এইচএসটিটিআই’র উপ-পরিচালককে প্রত্যাহার এবং শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

খুলনা এইচএসটিটিআই’র উপ-পরিচালককে প্রত্যাহার এবং শাস্তির দাবীতে মানববন্ধন

খুলনার আড়ংঘাটা থানাধীন তেলিগাতী এইচএসটিটিআই এর উপ-পরিচালক(সংযুক্ত) প্রফেসর ড. শেখ মোহতাশামুল হক মারুফের বিরুদ্ধে অনৈতিক কর্মকান্ড, জালিয়াতি, প্রতারণা এবং প্রতিষ্ঠানের সিমাহীন দূর্নীতি, অনিয়ম, অর্থ আত্মসাৎ সহ বিভিন্ন অপকর্মের অভিযোগে অবিলম্বে তাকে প্রত্যাহার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে গতকাল শনিবার সকাল ১১টায় স্থানীয় এলাকাবাসী মানববন্ধন কর্মসুচি পালন করে।

 

প্রতিষ্ঠানের প্রধান ফটকের সামনে ঘন্টা ব্যাপী মানববন্ধনের সভাপতিত্বে করেন খানজাহান আলী থানা যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক দিঘলিয়া উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সন্তান সংসদ কমান্ডের সাধারণ সম্পাদক মিজানুর রহমান রুপম এবং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা খায়রুল ইসলামের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে বক্তৃতা করেন ৩৩নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতা মোঃ ইউসুফ আলী খলিফা, সাংবাদিক নেতা শেখ আসলাম হোসেন, ওয়ার্ড মেম্বর আরিফ হোসেন, শেখ জাহিদ ইকবাল, সাবেক মেম্বর মোস্তাফিজুর রহমান, ছাত্রলীগ নেতা মোঃ মঞ্জুরুল আলম মেজবা, আব্দুল আল মামুন, যুবলীগ নেতা রেজাউল ইসলাম, মিরাজ, মিন্টন সানা, ইমন শেখ, সমাজসেবক রবিউল ইসলাম, মোঃ সোহন শেখসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

 

মানববন্ধন চলাকালে বক্তারা বলেন শেখ মোহতাশামুল হক মারুফ একজন অধ্যাপক হয়ে খুলনা বিএল কলেজের সহযোগী অধ্যাপকের ভূয়া শিক্ষক পরিচয়ে বছরের পর বছর জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষক হিসাবে অবৈধ সুযোগ নিচ্ছে বিষয়টি শুধু অপরাধ নয় তিনি ঐ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের যারা শিক্ষা দান করছে তাদের অধিকার থেকে বঞ্চিত করছে।

 

সম্প্রতি তার বিরুদ্ধে প্রতিষ্ঠানের অতিথি ভবনের সুপারের দায়িত্বে থাকাকালিন সময়ে অর্থ আত্মসাৎ, চরম আর্থিক অনিয়ম, তিন অর্থ বছরে কোন অর্থ সরকারি ফান্ডে জমা না দেওয়া, দেড় বছরের অর্থ আত্মসাৎ, প্রতিষ্ঠান প্রধানের অনুমতি ছাড়াই ইচ্ছামত খরচ করা, ভূয়া ও কাচা ভাউচারে বিল, বিধি লঙ্গন করে কয়েক মাসে আয়ের তুলনায় ১০ গুন বেশি খরচ দেখানো, সরকারি নিয়ম বহিভূতভাবে রশিদ বা প্রমাণপত্র ছাড়াই অর্থ গ্রহন, আয়-ব্যায়ের রেজিষ্ট্রারে কাটাছেড়া-ওভাররাইটিং, ষ্টক রেজিষ্ট্রারের মধ্যে ভাউচারের ক্রয়কৃত মালামালের গড়মিল ছাড়াও চাহিদাপত্রের সাথে ক্রয়কৃত মালামালের ব্যাপক পার্থক্যসহ চরম অনিয়ম ও দূর্নীতি অভিযোগের কথা।

 

প্রতিষ্ঠানের সুনাম অক্ষুন্ন রাখতে, প্রতিষ্ঠানের শৃংখলা ফিরিয়ে আনতে এবং প্রতিষ্ঠানকে দূর্নীতিমুক্ত করতে অবিলম্বে তাকে প্রত্যাহারসহ তদন্তপুর্বক ব্যবস্থা গ্রহনে করতে হবে অন্যথায় এলাকাবাসী দাবী আদায়ে কর্মসুচি দিতে বাধ্য হবে। মানববন্ধন শেষে এলাকাবাসী এইচএসটিটিআই এর পরিচালকের নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন।

সংযুক্ত থাকুন