বৃহস্পতিবার, ২২ এপ্রিল ২০২১
Logo
যশোরে শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে তিন কিশোর হত্যায় ১২জন অভিযুক্ত

যশোরে শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রে তিন কিশোর হত্যায় ১২জন অভিযুক্ত

যশোর শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রের তিন বন্দি কিশোর হত্যা মামলায় কেন্দ্রের চার কর্মকর্তাসহ ৮জনের বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করেছে পুলিশ। একইসাথে জড়িত অপ্রাপ্ত বয়স্ক অপর চার শিশুর বিরুদ্ধে দোষীপত্র দাখিল করা হয়েছে।


এছাড়া একজনকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। শুক্রবার এ চার্জশিট দাখিল করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা যশোর শহরের চাঁচড়া ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর মো. রকিবুজ্জামান।


চার্জশিটে অভিযুক্ত চার কর্মকর্তা হলেন- সাময়িক বরখাস্তকৃত সাবেক তত্ত্বাবধায়ক (সহকারী পরিচালক) আব্দুল্লাহ আল মাসুদ, সহকারী তত্ত্বাবধায়ক (প্রবেশন অফিসার) মাসুম বিল্লাহ, ফিজিক্যাল ইনসট্রাক্টর একেএম শাহানুর আলম ও সাইকো সোস্যাল কাউন্সিলর মুশফিকুর রহমান।


অভিযুক্ত কেন্দ্রের চার বন্দি কিশোর হলো- গাইবান্ধার খালিদুর রহমান তুহিন, নাটোরের হুমাইন হোসেন, মোহাম্মদ আলী ও পাবনার ইমরান হোসেন। অপ্রাপ্ত বয়স্ক অভিযুক্তরা হলো- চুয়াডাঙ্গার আনিস, কুড়িগ্রামের রিফাত হোসেন, রাজশাহীর পলাশ ওরফে শিমুল ও পাবনার মনোয়ার হোসেন।


মামলার তদন্ত কর্মকর্তা ইনসপেক্টর মো. রকিবুজ্জামান বলেন, এ মামলায় ১৩জন আসামি ছিলেন। তদন্ত শেষে এ ঘটনায় মোট ১২জনের সম্পৃক্ততার প্রমাণ পাওয়া যায়। এর মধ্যে চার কর্মকর্তা ও চার বন্দি প্রাপ্ত বয়স্ক হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে চার্জশিট দাখিল করা হয়েছে। এছাড়া অপর চার বন্দি অপ্রাপ্তবয়স্ক হওয়ায় তাদের বিরুদ্ধে দোষীপত্র দেয়া হয়েছে।


তিনি আরো বলেন, তদন্তে বন্দি কিশোর হত্যাকান্ডের সাথে শিশু উন্নয়ন কেন্দ্রের সাময়িক বরখাস্ত কারিগরি প্রশিক্ষক (ওয়েল্ডিং) ওমর ফারুকের জড়িত থাকার কোনো প্রমাণ মেলেনি।


এ কারণে চার্জশিটে তার অব্যহতির আবেদন জানানো হয়েছে। গতকাল এ মামলার চার্জশিট দেয়া হলেও কাগজে-কলমে তা দাখিলের দিন উল্লেখ করা হয়েছে ৯ ফেব্রুয়ারি।

সংযুক্ত থাকুন